করোনায় বিপাকে ইংল্যান্ড, সাহায্যের হাত বাড়াল ওয়েস্ট ইন্ডিজ - বিডি বুলেটিন করোনায় বিপাকে ইংল্যান্ড, সাহায্যের হাত বাড়াল ওয়েস্ট ইন্ডিজ - বিডি বুলেটিন

রবিবার, ০৫ এপ্রিল ২০২০, ০১:৩২ পূর্বাহ্ন

করোনায় বিপাকে ইংল্যান্ড, সাহায্যের হাত বাড়াল ওয়েস্ট ইন্ডিজ

করোনায় বিপাকে ইংল্যান্ড, সাহায্যের হাত বাড়াল ওয়েস্ট ইন্ডিজ

করোনাভাইরাসের আক্রমণে স্থগিত হয়েছে ইংল্যান্ডের শ্রীলঙ্কা সফর, পিছিয়ে নেয়া হয়েছে ঘরোয়া ক্রিকেটের সকল আসর। এছাড়াও শঙ্কায় পড়ে গেছে ঘরের মাঠে ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও পাকিস্তানের বিপক্ষে দুইটি সিরিজ। সবকিছু স্বাভাবিক থাকলে আগামী জুন-জুলাই মাসে হওয়ার কথা ছিলো এ দুই সিরিজ।

কিন্তু সার্বিক দিক বিবেচনা করে, করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলেও যথাসময়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও পাকিস্তান সিরিজ আয়োজন করার অবস্থায় থাকবে না ইংল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ড (ইসিবি)। কেননা যেসব ঘরোয়া টুর্নামেন্ট পেছানো হয়েছে, সেগুলো যথাসময়ে শেষ করারও একটা তাগাদা থাকবে তাদের।

ফলে সব পেছানো সূচি মাঠে নামানোর ক্ষেত্রে ‘সেশনজট’ দেখা দিতে পারে ইসিবির। এমতাবস্থায় ইংল্যান্ডের দিকে সাহায্যের প্রস্তাব নিয়ে হাত বাড়িয়ে দিয়েছে ক্রিকেট ওয়েস্ট ইন্ডিজ। ইসিবি চাইলে ওয়েস্ট ইন্ডিজেই সিরিজ দুইটি আয়োজন করতে পারে বলে প্রস্তাব দিয়েছে ক্যারিবীয় ক্রিকেট বোর্ড।

বর্তমান সূচি অনুযায়ী, আগামী ৪ জুন কিআ ওভালে তিন ম্যাচ সিরিজের প্রথম টেস্টে মুখোমুখি হওয়ার কথা রয়েছে ইংল্যান্ড ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের। কিন্তু করোনা পরিস্থিতির কারণে এ সিরিজটি সেপ্টেম্বরে নিয়ে যাওয়ার কথা ভাবা হচ্ছিলো শুরুতে। তবে ক্রিকেট ওয়েস্ট ইন্ডিজ প্রস্তাব দিয়েছে, সিরিজটি যথাসময়ে ইংল্যান্ডের বদলে ওয়েস্ট ইন্ডিজে করাই শ্রেয়।

শুধু ওয়েস্ট ইন্ডিজ-ইংল্যান্ড সিরিজই নয়, ইংলিশদের চলতি বছরের আরও দুই সিরিজের আয়োজক হওয়ার প্রস্তাব দিয়েছে ক্যারিবীয়রা। জুলাইয়ের শেষ দিকে পাকিস্তানের বিপক্ষে তিন ম্যাচের টেস্ট সিরিজ ও সেপ্টেম্বরের মাঝামাঝিতে আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে তিন ওয়ানডেতে স্বাগতিক হওয়ার কথা রয়েছে ইংল্যান্ডের।

তবে করোনাভাইরাসে যুক্তরাজ্যে এখনও পর্যন্ত ২৬০০’র বেশি মানুষ আক্রান্ত হয়েছেন, মারা গেছে অন্তত ১০৪ রান। এমতাবস্থায় সে দেশের পরিস্থিতি স্বাভাবিক হওয়া এবং খেলাধুলা শুরু হতে বেশ সময় লেগে যাওয়ার কথা। অন্যদিকে ওয়েস্ট ইন্ডিজের তুলনামূলক কম দেখা গিয়েছে করোনার প্রভাব।

এখনও পর্যন্ত বার্বাডোজ ও সেন্ট লুসিয়ায় একজন করে করোনা আক্রান্ত রোগী পাওয়া গিয়েছে। তাদের বিশ্বাস ইউরোপ ও আমেরিকার মতো ক্যারিবীয় দ্বীপপুঞ্জে মহামারী হয়ে উঠবে না করোনা।

আর এ কারণেই প্রথমে নিজেদের তিন ম্যাচের টেস্ট সিরিজ, পরে পাকিস্তান-ইংল্যান্ডের তিন ম্যাচের টেস্ট সিরিজ এবং শেষে আয়ারল্যান্ড-ইংল্যান্ডের মধ্যকার তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজের আয়োজক হতে চায় ক্যারিবীয়রা। এরই মধ্যে এ বিষয়ে আনুষ্ঠানিক প্রস্তাবও দেয়া হয়েছে বলে জানাচ্ছে সংবাদ মাধ্যমগুলো। এ বিষয়ে ইসিবির অবস্থান এখনও পরিষ্কার নয়।

এদিকে ওয়েস্ট ইন্ডিজের পক্ষ থেকে ইংল্যান্ডের দিকে সাহায্যের হাত বাড়ানো হলেও, চলতি বছর ক্যারিবীয়দের আরও খেলা রয়েছে তাদের দেশে। জুলাইয়ের মাঝামাঝিতে নিউজিল্যান্ড, জুলাইয়ের শেষ থেকে আগস্টের মাঝামাঝি পর্যন্ত দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে খেলবে তারা।

এরই মাঝে সময় বের করে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজ খেলতে চায় ক্যারিবীয়রা। আর্থিকভাবেও তাদের জন্য এটি একটি বড় সুযোগ হতে পারে। যে কারণে নিজেদের ফ্র্যাঞ্চাইজিভিত্তিক টুর্নামেন্ট ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগ (সিপিএল) পিছিয়ে দেয়া কিংবা দৈর্ঘ্য কমিয়ে আনার সিদ্ধান্তও নিতে পারে ক্রিকেট ওয়েস্ট ইন্ডিজ।

 87 total views,  1 views today

Print Friendly, PDF & Email

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন




© All rights reserved © bdbulletin.com 2018