প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশেই খালেদাকে মুক্তির সিদ্ধান্ত - বিডি বুলেটিন প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশেই খালেদাকে মুক্তির সিদ্ধান্ত - বিডি বুলেটিন

শনিবার, ০৪ এপ্রিল ২০২০, ০১:৩২ অপরাহ্ন

সর্বশেষ সংবাদ :
দেশে করোনায় আরও দুজনের মৃত্যু, আক্রান্ত বেড়ে ৭০ করোনাভাইরাসে ২৪ ঘণ্টায় ২ জনের মৃত্যু করোনায় মৃতদের গোসল ও দাফনে স্বেচ্ছায় যে ১১ ব্যক্তি আগ্রহী! চীনের আবিষ্কৃত করোনার ভ্যাকসিন গ্রহণকারীরা সুস্থ আছেন আমেরিকায় করোনায় মৃতের সংখ্যা ৭ হাজার ছাড়াল ঝালকাঠিতে স্বপ্নপূরণ সমাজকল্যাণ সংস্থার ব্যতিক্রমী উদ্যোগ,পাঁচ টাকায় ৮ পণ্য মোংলায় স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসা সুন্দরবনের জলদস্যুদের পাশে দাঁড়ালো র‍্যাব-৮ জলঢাকায় ৫৮ বোতল ফেন্সিডিলসহ দুই মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার ডোমারের পাঙ্গায় ব্যবসায়ীর ৩০ হাজার টাকা জরিমানা কর্মহীন মানুষদের জন্য সহায়তা চেয়ে নীলফামারী জেলা প্রশাসকের গণবিজ্ঞপ্তি
প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশেই খালেদাকে মুক্তির সিদ্ধান্ত

প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশেই খালেদাকে মুক্তির সিদ্ধান্ত

কারাবন্দি বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে শর্তসাপেক্ষে ছয় মাসের জন্য মুক্তি দেয়ার সুপারিশ করেছে সরকার।

মঙ্গলবার (২৪ মার্চ) বিকেলে গুলশানে নিজ বাসায় জরুরি সংবাদ সম্মেলন করে আইনমন্ত্রী আনিসুল হক এ কথা জানিয়েছেন।

আনিসুল হক বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এ ব্যাপারে নির্দেশ দিয়েছেন। প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ হচ্ছে আইনি প্রক্রিয়ায় দুই শর্তে তার দণ্ডাদেশ স্থগিত রেখে তাকে মুক্তি দেয়া হোক। সরকার মানবিক কারণে সদয় হয়ে এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

তিনি বলেন, বিদেশ না যাওয়ার শর্তে ফৌজদারি কার্যবিধি ৪০১ ধারার ১ উপধারা মতে ছয় মাসের জন্য খালেদা জিয়ার সাজা স্থগিত করে তাকে মুক্তি বিষয়ে মতামত দিয়েছি। মতামত স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে পাঠানো হয়েছে। সেখান থেকে তাকে মুক্তির বিষয়ে পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।

আইনমন্ত্রী বলেন, খালেদা জিয়ার বয়স বিবেচনায় এবং মানবিক কারণে তার দণ্ডাদেশ স্থগিত রাখার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। তবে এসময় তিনি বাসায় থেকে চিকিৎসা নেবেন। দেশের বাইরে গমন করতে পারবেন না। আজকের পরিপ্রেক্ষিতে (কোভিড-১৯ পরিস্থিতি) কাউকে বিদেশে যেতে বলা মানে তাকে সুইসাইড (আত্মহনন) করতে বলা।

বাসায় অসুস্থ হলে তিনি কীভাবে চিকিৎসা নেবেন? সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে আইনমন্ত্রী বলেন, চিকিৎসার যদি দরকার হয় তিনি বর্তমানে বাংলাদেশের সবচেয়ে মানসম্মত হাসপাতালে (বিএসএমএমইউ) আছেন। সেখানে তার চিকিৎসা চলছে। আর ভবিষ্যতে এ বিষয়টি অবস্থার পরিপ্রেক্ষিতে বোঝা যাবে।

সরকারের সিদ্ধান্ত কখন থেকে কার্যকর হবে? জানতে চাইলে মন্ত্রী বলেন, যখন থেকে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় তাকে মুক্তি দেবে তখন থেকে।

জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট ও জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতির মামলায় সাজা পেয়ে ২০১৮ সালের ৮ ফেব্রুয়ারি থেকে কারাগারে খালেদা জিয়া। বর্তমানে তিনি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বিএসএমএমইউ) প্রিজন সেলে চিকিৎসাধীন।

বিশ্বজুড়ে যে চিত্র দেখা যাচ্ছে, তাতে করোনাভাইরাসে ৬০ বছরের বেশি বয়সী মানুষের আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি বেশি। সেজন্য ৭৫ বছর বয়সী খালেদা জিয়াকে মুক্তির দাবি জানিয়ে আসছিল বিএনপি।

 132 total views,  4 views today

Print Friendly, PDF & Email

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন




© All rights reserved © bdbulletin.com 2018