শনিবার, ১৭ অগাস্ট ২০১৯, ০৭:০৫ অপরাহ্ন

ট্রাক চালকের বুদ্ধিমত্তায় রক্ষা পেল গৃহবধূর ইজ্জত

ট্রাক চালকের বুদ্ধিমত্তায় রক্ষা পেল গৃহবধূর ইজ্জত

চট্টগ্রাম নগরে নারীকে চলন্ত বাসে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে চালক ও হেলপারকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। শনিবার মধ্যরাতে নগরের শহীদ সাইফুদ্দিন খালেদ সড়কের চট্টগ্রাম ক্লাবের সামনে এই ঘটনা ঘটে।

গ্রেফতার দুজন হলেন— বাসচালক রবিউল আউয়াল (২২) ও তার সহকারী মো.হৃদয় (২৪)।

কোতোয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোহাম্মদ মহসীন বলেন, ঘটনার শিকার ওই গৃহবধূ স্বামীর সঙ্গে চট্টগ্রাম নগরের বাকলিয়া থানা এলাকায় ভাড়া বাসায় থাকেন। তার বাবার বাড়ি আনোয়ারা উপজেলায় এবং শ্বশুর বাড়ি কক্সবাজারের উখিয়া উপজেলায়।গৃহবধূ মামলার এজাহারে অভিযোগ করেছেন, শনিবার রাত ১১টার দিকে বাবার বাড়ি আনোয়ারা উপজেলা থেকে তিনি শাহ আমানত সেতু এলাকায় পৌঁছান। কিন্তু বাসার চাবি বাবার বাড়িতে ফেলে আসায় তিনি নগরের দেওয়ানহাটে চাচাতো বোনের বাসায় যাওয়ার উদ্দেশে বহদ্দারহাটের এক নম্বর রুটের বাসে ওঠেন। বাসটি জিইসি মোড়ে যাওয়ার পর অন্যান্য যাত্রীরা নেমে যান। এ সময় রবিউল ও হৃদয় গৃহবধূকে দেওয়ানহাট মোড়ে নামিয়ে দেয়ার আশ্বাস দিয়ে বাস চালানো শুরু করেন। কিন্তু বাসটি লালখান বাজার মোড়ে যাওয়ার পর দেওয়ানহাটের দিকে না গিয়ে গতিপথ বদলে কাজীর দেউড়ির দিকে যাওয়া শুরু করে। গৃহবধূ তাদের অসৎ উদ্দেশ্য বুঝতে পেরে তাকে নামিয়ে দেয়ার জন্য বলেন।

কিন্তু তার কথা না শুনে দ্রুতগতিতে বাসটি চালিয়ে কাজীর দেউড়ির দিকে নিয়ে যাওয়া হচ্ছিল। চট্টগ্রাম ক্লাবের সামনে যাওয়ার পর হৃদয় তাকে ধর্ষণের চেষ্টা করেন। এ সময় তিনি চিৎকার করেন এবং জানালা দিয়ে লাফ দেয়ার চেষ্টা করেন। তার চিৎকারে বাসটির পেছনে থাকা গরুবাহী একটি ট্রাকের লোকজন তা বুঝতে পেরে বাসটিকে ধাওয়া করতে শুরু করে। বাসটি কাজীর দেউড়ি মোড়ে পৌঁছালে গরুবাহী ট্রাকটির চালক বাসটির সামনে গিয়ে পথরোধ করেন।এ সময় বাসের চালক ও সহকারীকে আটক করেন স্থানীয় লোকজন। পরে দুজনকে পুলিশে সোপর্দ করেন।

নিউজটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন




© All rights reserved © bdbulletin.com 2018